বৃহস্পতিবার, ১৮ অগাস্ট ২০২২, ১১:০৮ পূর্বাহ্ন

মাকে হত্যার দায়ে ছেলের মৃত্যুদণ্ড

মাকে হত্যার দায়ে ছেলের মৃত্যুদণ্ড

Spread the love

গাইবান্ধা: গাইবান্ধায় মাকে হত্যার দায়ে ছেলে জিয়াউল হককে (৪৩) মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত।

বৃহস্পতিবার (২৮ অক্টোবর) দুপুরে গাইবান্ধা জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক দিলীপ কুমার ভৌমিক এই রায় দেন।

রায় ঘোষণার সময় আসামি আদালতে উপস্থিত ছিলেন।
দণ্ডপ্রাপ্ত ব্যক্তির নাম মো. জিয়াউল হকের বাড়ি গাইবান্ধা সদর উপজেলার শিবপুর গ্রামে। তিনি ওই গ্রামের নুরুল ইসলাম খন্দকারের ছেলে।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবি (পিপি) ফারুক আহম্মেদ মৃত্যুদণ্ডের আদেশের বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, আসামিকে মৃত্যু পর্যন্ত ফাঁসিতে ঝুলিয়ে কার্যকর করার আদেশ দেওয়া হয়েছে।

মামলার বিবরণে জানা যায়, ২০১৮ সালের ১২ জুন জিয়াউল হক তার ছোটভাই জোবায়ের খন্দকারের কাছে টাকা চান। ছোটভাই টাকা দিতে রাজি না হওয়ায় জিয়াউল হক ক্রিকেট খেলার ব্যাট দিয়ে জোবায়েরকে হত্যার উদ্দেশ্য মারতে যান। এসময় তার মা জহুরা বেগম বাঁধা দিতে আসলে তাকে মারধর করেন। এতে তিনি গুরুতর জখম হন।

পরে স্থানীয় লোকজন জহুরা বেগমকে গুরুতর আহত অবস্থায় গাইবান্ধা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করান। সেখানে তার অবস্থা অবনতি হলে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে রংপুর মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় জহুরা বেগম ওইদিন রাতেই মারা যান।

এ ঘটনায় নিহতের স্বামী নুরুল ইসলাম খন্দকার বাদী হয়ে গাইবান্ধা সদর থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। ওই মামলার সাক্ষীদের সাক্ষ্যগ্রহণ ও দীর্ঘশুনানি শেষে বিচারক ২৮ অক্টোবর এ রায় দেন।

আসামি পক্ষে মামলাটি পরিচালনা করেন জাতীয় আইনগত সহায়তা প্রদান সংস্থার নিযুক্ত আইনজীবী মাসুদার রহমান বিশ্বাস।

 165 total views,  3 views today

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




themesba-zoom1715152249
© আইন আদালত প্রতিদিন। সর্বসত্ব সংরক্ষিত।
ডিজাইন ও ডেভেলপে Host R Web